কলকাতা ডার্বি তে বড় জয় মোহনবাগানের, লজ্জার আত্মসমর্পণ ইস্টবেঙ্গলের

ইন্ডিয়ান সুপার লিগের প্রথম কলকাতা ডার্বিতে আজ মুখোমুখি হয়েছিল চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী মোহনবাগান এবং ইস্টবেঙ্গল। ডার্বি মানে সেয়ানে সেয়ানে লড়াই, কেউ কাউকে ছেড়ে কথা না বলা উত্তেজনাকর ম্যাচ।

কিন্তু কোথায় কি! ইস্টবেঙ্গল যেন মিইয়ে যাওয়া নিমকি। গোটা ম্যাচ জুড়েই প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারলোনা সবুজ মেরুন ব্রিগেডের বিরুদ্ধে। এ বছরেও চুক্তি জটিলতায় ঠিকভাবে দল করতে পারেনি ইস্টবেঙ্গল। আর তার ফল মিলল ডার্বিতে। লজ্জার হারের সম্মুখীন হতে হলো তাদের। মোহনবাগান বরাবরের মতোই গুছিয়ে গুছিয়ে দল বানিয়েছে এ বছরও। শুরু থেকেই দাপট দেখাতে থাকে মেরিনার্স রা। ১২ মিনিটেই রয় কৃষ্ণার গোলে এগিয়ে যায় মোহনবাগান (১-০)। কয়েক মিনিটের মধ্যেই জোরালো শটে ব্যবধান বাড়ায় মনদীপ সিং(২-০)। এরপর ২৩ মিনিটের মাথায় ইস্টবেঙ্গলের ডিফেন্সের ছন্নছাড়া অবস্থা কে কাজে লাগিয়ে এবং গোলকিপারের সঙ্গে ডিফেন্সের তার মিল না থাকায় ফাঁকা গোলে বল জড়ায় কোলাকাও(৩-০)।

প্রথম দিকে গোলের বন্যা দেখে ইস্টবেঙ্গলের অতি বড় সমর্থক ও ভয়ে কাঁপছিল হয়তো আজ হাফ ডজন গোল খাবে লাল হলুদ ব্রিগেড। কিন্তু না সারা ম্যাচে মোহনবাগান নিজেদের আয়ত্তে খেলা ধরে রাখলেও আর গোল করতে পারেনি। তবে ৩-০ এ হারাটাও বিশেষ সুখবর নয় ইস্টবেঙ্গল এর কাছে, যেখানে কোনরূপ লড়াই পর্যন্ত দিতে পারেনি তারা অসহায় আত্মসমর্পণ করেছে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বীর কাছে। ইস্টবেঙ্গলের দলের বাঁধনি যে কতটা কলকাতা প্রমাণ হয়ে যায় আজকে তাদের শর্টসের স্ট্যাটাস দেখলে, গোটা ম্যাচে তারা একটা গোলমুখী শট নিতে পারেনি যেখানে মোহনবাগান ১২ বার সমস্যায় ফেলেছে ইস্টবেঙ্গল গোলকিপার কে!